সংসদকে আইনমন্ত্রী : তারেক রহমানের বিরুদ্ধে ২টি মামলায় সাজা, ৪টি মামলা বিচারাধীন

বাংলাপ্রেস ডেস্ক, ঢাকাঃ আইনমন্ত্রী আনিসুল হক সংসদ কে জানিয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার ছেলে ও

দলটির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারপারসন তারেক রহমানের বিরুদ্ধে ২টি মামলায় সাজা হয়েছে এবং ৪টি মামলা বিচারাধীন রয়েছে।

বুধবার সংসদে সরকারি দলের সদস্য বেগম ফজিলাতুন নেসা বাপ্পির এক প্রশ্নের জবাবে এ কথা জানান তিনি। আইনমন্ত্রী বলেন, সাজাপ্রাপ্ত মামলা ২টি হলো জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলা এবং ক্যান্টনমেন্ট থানায় মানি লন্ডারিং আইনে দায়ের করা মামলা। আনিসুল হক  আরও বলেন, মানি লন্ডারিং মামলায় নিম্ন আদালত তারেক রহমানকে খালাস দেন। ওই খালাস আদেশের বিরুদ্ধে হাইকোর্ট বিভাগে আপিল করা হয়। আপিলের রায়ে আসামি তারেক রহমানকে ৭ বছর সশ্রম কারাদণ্ড এবং ২০ কোটি টাকা জরিমানা করা হয়। জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় তারেক রহমানের ১০ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড এবং ২ কোটি ১০ লাখ ৭১ হাজার ৬৪৩ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। অন্যান্য আসামির সঙ্গে ভাগাভাগি করে এই অর্থ রাষ্ট্রীয় কোষাগারে জমা দেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, অবৈধ সম্পদ অর্জনের দায়ে তারেক রহমানের বিরুদ্ধে একটি মামলা রয়েছে। এ মামলায় তারেক ছাড়াও তার স্ত্রী ডা. জোবায়দা রহমান ও শাশুড়ি সৈয়দা ইকবাল মান্দ বানু আসামি হিসেবে অভিযুক্ত হন। আইনমন্ত্রী বলেন, তারেক রহমানের বিরুদ্ধে ২০০৪ সালের ২১ আগস্টের গ্রেনেড হামলার মামলা রয়েছে। এটি দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে বিচারাধীন। এছাড়াও আরো ২টি মামলা নিষ্পত্তির অপেক্ষায় রয়েছে।

 বাংলাপ্রেস/ ১৪ ফেব্রুয়ারি/আরএল